এখন পড়ছেন
হোম > রাজ্য > জঙ্গলমহলে আগামী নির্বাচনের জল মাপার কাজে পঞ্চায়েতকে ব্যবহার করতে চায় শাসকদল

জঙ্গলমহলে আগামী নির্বাচনের জল মাপার কাজে পঞ্চায়েতকে ব্যবহার করতে চায় শাসকদল

Priyo Bandhu Media

রাজ্যের সর্বত্র বাহু বল দেখিয়ে গ্রাম পঞ্চায়েত, পঞ্চায়েত সমতি এবং জেলা পরিষদ দখল করে নেওয়ার অভিযোগ উঠেছে রাজ্যের শাসক দল তৃণমূল কংগ্রেসের বিরুদ্ধে। কিন্তু রাজ্যের নব গঠিত জেলা ঝাড়্গ্রামের ক্ষেত্রে ব্যাপারটা একটু হলেও আলাদা। কোনো রকম গায়ের জোর দেখিয়ে নয় এলাকার উন্নয়নকে পুঁজি করেই পঞ্চায়েত নির্বাচনে জয়লাভে আগ্রহী তৃণমূল কংগ্রেস। এই সম্বল করেই বিরোধীদলকে রীতিমতো নির্বাচনী লড়াইয়ে আহ্বান করলেন জেলা তৃণমূল নেতৃত্ব। এই সুযোগে শাসকদল জেলার মানুষের কাছে নিজেদের অবস্থান যাচাই করে নিতে চাইছে।

আরো খবর পেতে চোখ রাখুন প্রিয়বন্ধু মিডিয়া-তে

এই জেলা বহুদিনের প্রাচীন নয়। অল্প কদিন আগেই গঠিত হয়েছে।কিছুদিন আগেও পশ্চিম মেদিনীপুর জেলার অংশ ছিলো ঝাড়্গ্রাম এবং ঐ অঞ্চল জঙ্গলমহল নামেই অধিক প্রসিদ্ধ ছিলো। মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় মুখ্যমন্ত্রী নির্বাচিত হওয়ার পরে তিনি বহুবার জঙ্গলমহল সফর করেছেন। এবং এই নব গঠিত জেলার উন্নয়নের জন্যে একাধিক উন্নয়নমূলক ও সামাজিক প্রকল্পের সূচনা করেন। এখন পঞ্চায়েত নির্বাচনের কাজে জেলার দলীয় নেতৃত্ব মরিয়া হয়ে উঠেছে। জেলার দলীয় কর্মীরা যথেষ্ট আত্মবিশ্বাসী হয়ে জানালেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় জঙ্গলমহলের উন্নয়নে যা করেছেন তাতে অনায়াসেই তৃণমূল কংগ্রেস জয়লাভ করবে। তাই যখন সারা রাজ্যের কম বেশি সব জেলাই নির্বাচন সংক্রান্ত সন্ত্রাসের মুখোমুখি, তখন ঝাড়্গ্রাম জেলা স্বাভাবিকভাবেই নির্বাচনে জয়লাভ নিয়ে আত্মবিশ্বাসী এবং নিশ্চিত ও। এই প্রসঙ্গে তৃণমূল কংগ্রেস জেলা কমিটির সহ সম্পাদক স্বপন পাত্র বললেন , ” এই পঞ্চায়েত নির্বাচনে দেখতে চাই আমরা সাধারণ মানুষের কাছে কতটা পৌঁছতে পেরেছি। তবে যে হারে জেলায় উন্নয়ন হয়েছে তাতে আমরা আশাবাদী ফলাফল আমাদের পক্ষেই যাবে।” অন্যদিকে বিজেপির জেলা সভাপতি সপখমত শতপতির দাবি অনুয়ারী, ”তৃণমূলে বীতশ্রদ্ধ জঙ্গলমহলের মানুষ। সাধারণ মানুষের বিজেপিতে যোগদান বাড়ছে। জঙ্গলমহলবাসী ব্যালটবক্সে এর জবাব দেবে।”

আপনার মতামত জানান -

Top
error: Content is protected !!