এখন পড়ছেন
হোম > জাতীয় > বিজেপিকে আটকাতে লোকসভায় ‘লুকোনো তাস’ ব্যবহারের ভাবনায় জল্পনা বাড়ল

বিজেপিকে আটকাতে লোকসভায় ‘লুকোনো তাস’ ব্যবহারের ভাবনায় জল্পনা বাড়ল

একটি সর্বভারতীয় সংবাদমাধ্যমকে দেওয়া সাক্ষাত্‍কারে নেহেরু বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্র নেতা কানাইয়া কুমার ২০১৯ সালে লোকসভা নির্বাচনে তাঁর প্রতিদ্বন্দ্বীতা করার সম্ভবনার ইঙ্গিত দিলেন। তিনি জানালেন নির্বাচনে প্রতিদ্বন্দ্বীতা করবনে না এমন কথা তিনি কখনও বলেননি। যদি সুযোগ হয় তাহলে তিনি তাঁর প্রথম পছন্দ আরজেডি দলের মনোনয়নে নির্বাচনে লড়াই করবেন। তাঁর এই মন্তব্য ঘিরে স্বাভাবিকভাবেই নানা জল্পনা তৈরী হচ্ছে রাজনৈতিক মহলে।

আরো খবর পেতে চোখ রাখুন প্রিয়বন্ধু মিডিয়া-তে

এদিন বিজেপি বিরোধী কানাইয়া বললেন, যদি বিহারে বাম, কংগ্রেস এবং আরজেডি সম্মমিলিত ভাবে কোনো জোট তৈরী হয় তাহলে সেই জোটের পক্ষ থেকে তিনি প্রতিদ্বন্দ্বীতা করতে প্রস্তুত রয়েছেন । তবে সেক্ষেত্রে একটি শর্ত রেখেছেন তিনি। তা হলো নির্বাচনে লড়াই করার জন্য প্রয়োজনীয় অর্থ তাঁকে জোগাড় করে দিতে হবে। এই বিষয়ে তিনি বললেন, ”আমি সংঘবদ্ধ রাজনীতিতে বিশ্বাস করি। যদি কখনো রাজনীতিতে আসি বা ভোটে লড়াই করি তাহলে কোনও প্রধান দলের হয়ে ময়দানে নামব। আমি ব্যক্তিগত ক্যারিশমায় বিশ্বাস করি না।” সূত্রের খবর অনুয়ারী কানাইয়াকে তাঁর জন্মস্থান বিহার থেকে নির্বাচনে প্রার্থী হিসেবে মনোনীত করার কথা ভাবা এরমধ্যেই শুরু করে দিয়েছে বিহারের রাজনৈতিক দলগুলি। শোনা যাচ্ছে বিহারের বেগুসারাই লোকসভা কেন্দ্রটি তাঁর জন্য ভাবা হচ্ছে। যদিও এই অনুমানের সপক্ষে কোনো নির্দিষ্ট প্রমান পাওয়া যায়নি। অবশ্য বামপন্থায় আগাগোড়া বিশ্বাসী কানাইয়া জানিয়েছেন তাঁর পরিবার দীর্ঘদিন ধরে সিপিআইয়ের সঙ্গে যুক্ত। তিনি নিজেও বাম আর্দশে বিশ্বাসী। তার প্রথম কাজই হবে বিজেপি বিরোধী আবহাওয়া তৈরী করা।

আপনার মতামত জানান -
Top
error: Content is protected !!