এখন পড়ছেন
হোম > জাতীয় > গেরুয়া রাজনীতির ঝড়ে বিরোধীদের আটকাতে নারী-ফৌজের নতুন কৌশল অমিত শাহের

গেরুয়া রাজনীতির ঝড়ে বিরোধীদের আটকাতে নারী-ফৌজের নতুন কৌশল অমিত শাহের

গেরুয়া রাজনীতির ঝড়ে বিরোধীদের আটকাতে নারী-ফৌজের নতুন কৌশল অমিত শাহের। দেশজুড়ে একেরপর এক ধর্ষণ, মহিলা নিগ্রহ ইত্যাদির জন্য বিরোধীপক্ষের সমালোচনায় নরেন্দ্র মোদিকে তাক করা হচ্ছে। আর তাই এই সমালোচনার জবাব দিতে এবার লোকসভা ভোটকে লক্ষ্য করে বিজেপি সভাপতি অমিত শাহ ৩০ হাজারেরও বেশি মহিলা ফৌজ তৈরী করার নির্দেশ দিলেন। তার নির্দেশ অনুযায়ী জেতা আসনের প্রতি বুথে ৫ জন করে মহিলা ও হারা যাওয়া আসনের প্রতি বুথে কম করে ৩ জন করে মহিলা টিম থাকবে।

আরো খবর পেতে চোখ রাখুন প্রিয়বন্ধু মিডিয়া-তে

প্রতি বিধানসভা কেন্দ্র থেকে এমন ৫ জন মহিলাকে বাছতে হবে যাঁরা বক্তৃতা দিতে পারদর্শী। এই নির্দেশের পরিপ্রেক্ষিতে এক বিজেপি নেতা জানান, “দেশে প্রায় ৯ লক্ষ ২৭ হাজারের বেশি বুথে সভাপতির এই নির্দেশ পালন করতে হলে ৩০ লক্ষের বেশি মহিলা ফৌজ তৈরি করতে হবে। সব মিলিয়ে খুঁজতে হবে অন্তত ২০ হাজার বাগ্মী মহিলাকে। এঁদের কাজ হবে, মহিলাদের নিয়ে মোদী সরকারের পদক্ষেপ তুলে ধরা।” জানা গেছে নরেন্দ্র মোদী গুজরাটে মুখ্যমন্ত্রী থাকাকালীন মহিলা বাহিনীকে সক্রিয় করে ভালো ফল পেয়েছিলেন। অমিত শাহের মতে, “বিজেপির ভোট বাড়ানোর জন্য মহিলারা অনেক ক্ষেত্রে পুরুষ কর্মীদের থেকে বেশি পারদর্শিতা দেখান। শিশু ধর্ষণে মৃত্যুদণ্ড দিতে মোদী সরকার সম্প্রতি যে অধ্যাদেশ এনেছে, তা প্রচার করতে হবে। পাশাপাশি কেন্দ্রের ‘বেটি বচাও, বেটি পড়াও’, শৌচালয়, রান্নার গ্যাস দেওয়া, মুদ্রা প্রকল্পে মহিলারাই যে সবথেকে বেশি লাভবান হয়েছেন- সেগুলি আরও বেশি করে প্রচার করবেন মহিলারা।” দলের এক নেতার কথায়, “দলের মহিলা কর্মীরা যদি সামনে থাকেন, তা হলে বিরোধীদের আক্রমণের মোক্ষম জবাব দেওয়া যাবে।” এদিন প্রধানমন্ত্রী মধ্যপ্রদেশের একটি সভায় মন্তব্য করেন, “এখন শিশুকে ধর্ষণ করা হলে শাস্তি ফাঁসি। এ নিয়ে সামাজিক আন্দোলন শুরু করা দরকার। মহিলাদের সম্মান করা দেশের সংস্কৃতি। পুরুষদেরও তা মান্য করতে হবে।” তবে এই মহিলা ফৌজ কেবলমাত্র নারী নির্যাতনের বিরুদ্ধেই লড়বে না তারা লোকসভায় সংগঠনের ভিতও তৈরী করবে। আর তাই টিম তৈরির পরেই সম্মেলন করার নির্দেশ দেওয়া হয়েছে ওই মহিলা মোর্চা দলের উদ্যেশ্যে।

আপনার মতামত জানান -
Top
error: Content is protected !!