এখন পড়ছেন
হোম > জাতীয় > আসন্ন পাঁচ লোকসভা আসনে উপনির্বাচন, সংখ্যাগরিষ্ঠতা বাঁচাতে ঘুম উড়েছে গেরুয়াশিবিরে

আসন্ন পাঁচ লোকসভা আসনে উপনির্বাচন, সংখ্যাগরিষ্ঠতা বাঁচাতে ঘুম উড়েছে গেরুয়াশিবিরে

২০১৪-তে বিজেপির আসন সংখ্যা ছিল ২৮২। মার্চ ২০১৮-তে উপনির্বাচনে হারের ফলে বিজেপির আসন সংখ্যা ২৭৪। আটটি আসন বিজেপি হারিয়েছে বিরোধীদের কাছে। আর যদি এই তালিকা থেকে স্পিকার সুমিত্রা মহাজনের আসন বাদ দেওয়া যায়, তাহলে বিজেপির আসন সংখ্যা দাঁড়ায় ২৭৩-এ। তাই সংখ্যাগরিষ্ঠতা বাঁচাতে আপাতত ঘুম উড়েছে গেরুয়া শিবিরের। সামনেই আরও ৫ টি লোকসভার উপনির্বাচন রয়েছে। আসনগুলির সবই এনডিএ-র দখলে ছিল। এর মধ্যে ৩ টি ২০১৪-র নির্বাচনে বিজেপি জিতেছিল। যার একটি হলো কাইরানা আসন, এটি রয়েছে পশ্চিম উত্তর প্রদেশে।

আরো নতুন খবর পেতে চোখ রাখুন প্রিয়বন্ধু মিডিয়া-তে

অপর দুটি আসনের কোনও একটির একটু এদিক-ওদিক হলেই পরিস্থিতি জটিল হতে পারে বলেই মনে করছে রাজনৈতিক মহল।শুধু উত্তর প্রদেশই নয়, বিজেপির কাছে মহারাষ্ট্রের রাজনৈতিক পরিস্থিতিও কিছুটা চিন্তার। কংগ্রেস নেতৃত্ব শারদ পাওয়ার এনসিপির সঙ্গে জোট বাঁধতে চাইছে। আবার একই সঙ্গে শিবসেনা জানিয়েছে, তারা বিধানসভা ও লোকসভা নির্বাচনে বিজেপির সঙ্গে কোনও জোট করবে না।
এক সিনিয়র বিজেপি নেতার মতে, উপনির্বাচনে উন্নয়ন কিংবা চিন্তাধারার ওপর ভোট হয় না। বলা যেতে পারে জাতিভেদের অঙ্কের ওপর এই নির্বাচন হয়। এবং আরেক বিজেপি নেতার মতে, কাইরানা উপনির্বাচন বিজেপির কাছে আসল পরীক্ষা। উত্তর প্রদেশের কাইরানা আসনেও এসপি ও বিএসপির জোট নির্বাচনে লড়বে। এই জোটের লড়াই ছাড়াও বিজেপিকে গ্রামের কৃষকদের ক্ষোভের মোকাবিলাও করতে হবে।
এ ছাড়াও যে দুটি আসনে উপনির্বাচন হবে, তার মধ্যে রয়েছে জম্মু ও কাশ্মীরের অনন্তনাগ। আবার এনডিএ সঙ্গী মেহবুবা মুফতি মুখ্যমন্ত্রী হওয়ার পর থেকে আসনটি ফাঁকা রয়েছে। অন্যদিকে নেইফিউ রিও নাগাল্যান্ডের মুখ্যমন্ত্রী হওয়ায় নাগাল্যান্ড আসনটিও শূন্য হয়েছে।

আপনার মতামত জানান -
Top
error: Content is protected !!