এখন পড়ছেন
হোম > বিশেষ খবর > মহারণের সোমবার: তিন-তিনটি মামলায় ঠিক হতে চলেছে পঞ্চায়েত নির্বাচনের ভাগ্য

মহারণের সোমবার: তিন-তিনটি মামলায় ঠিক হতে চলেছে পঞ্চায়েত নির্বাচনের ভাগ্য

পশ্চিমবঙ্গের আসন্ন পঞ্চায়েত নির্বাচন আপাতত হিমঘরে মামলার জটিল জটে। আর তাই ত্রিস্তরীয় পঞ্চায়েত নির্বাচনের ভবিষ্যৎ আপাতত বিশ বাঁও জলে। কিন্তু সেই জট কেটে আলোর দিশা দেখা যেতে পারে আগামীকাল বলে সংশ্লিষ্ট রাজনৈতিক মহলের ধারণা, কেননা একসঙ্গে তিন-তিনটি মামলার শুনানি হতে চলেছে আগামীকাল। ফলে আপাতত সেইদিকেই তাকিয়ে সমগ্র বঙ্গবাসী। আসুন একনজরে দেখে নেওয়া যাক কি সেই তিন মামলা, যা আপাতত রাজ্য রাজনীতির মোড় ঘুরিয়ে দিতে চলেছে –

আরো খবর পেতে চোখ রাখুন প্রিয়বন্ধু মিডিয়া-তে

প্রথম মামলা – রাজ্যে মনোনয়নপত্র জমা দেওয়া নিয়ে বিরোধীদের প্রচুর অভিযোগ ছিল। মূল অভিযোগ শাসকদলের কর্মীরা সন্ত্রাস করে তাঁদের ইচ্ছুক প্রার্থীদের মনোনয়নই জমা দিতে দিচ্ছে না। আর তাই নির্বাচন কমিশনকে সুনিশ্চিত করতে হবে, ইচ্ছুক সব প্রার্থী যাতে মনোনয়ন জমা দিতে পারে। এই পরিপ্রেক্ষিতে মনোনয়ন জমা দেওয়ার শেষ দিন রাত্রে কমিশন আরো একদিন বর্দিত করে মনোনয়ন জমা দেওয়ার সময়। কিন্তু তৃণমূল নেতা কল্যাণ বন্দ্যোপাধ্যায় কমিশনকে জানান, মনোনয়ন জমা দেওয়ার সময় পেরিয়ে যাওয়ার পর এই ঘোষণা কার্যত ‘বেআইনি’, আর তাই পরের দিন সেই নির্দেশ প্রত্যাহার করে নেয় কমিশন। এই ঘটনার পরিপ্রেক্ষিতে বিরোধীরা আদালতে গেলে বিচারপতি একরাশ প্রশ্ন সাজিয়ে দেন রাজ্য নির্বাচন কমিশনের সামনে। সেই প্রশ্নের উত্তর বা তথ্য ছিল না নির্বাচন কমিশনের কাছে, আর তাই আগামী ১৬ এপ্রিল পর্যন্ত পঞ্চায়েতের সমস্ত রকম নির্বাচনী কাজে স্থগিতাদেশ দিয়ে সেই তথ্য আদালতকে জানাতে বলেন বিচারপতি। কমিশন সেইসব তথ্য আগামীকাল কমিশনের হাতে তুলে দিলে, কালই এই মামলার রায় ঘোষণা হতে পারে।

দ্বিতীয় মামলা – প্রথম মামলার পরিপ্রেক্ষিতে রাজ্যের শাসকদল তৃণমূল কংগ্রেসের তরফে একটি মামলা করা হয় কলকাতা হাইকোর্টের ডিভিশন বেঞ্চে। নির্বাচন প্রক্রিয়ায় স্থগিতাদেশের নির্দেশের পরিপ্রেক্ষিতে বিচারপতি বিশ্বনাথ সমাদ্দার এবং বিচারপতি অরিন্দম মুখোপাধ্যায়ের ডিভিশন বেঞ্চে সেই মামলার শুনানিও হবে আগামীকাল। দুই বিচারপতি এর আগেই তৃণমূল কংগ্রেসের তরফে মামলাকারী কল্যাণ বন্দ্যোপাধ্যায়কে সব পক্ষকে নোটিশ দিয়ে আবেদন করতে বলেন। স্বভাবতই তৃণমূল কংগ্রেসের পক্ষে দলের সহ-সভাপতি তথা দাপুটে আইনজীবী কল্যানবাবু এই নিয়ে আগামীকাল ঝড় তুলতে চলেছেন।

তৃতীয় মামলা – নির্বাচন কমিশনের নির্দেশিকা অনুসারে আগামী ১ লা মে ত্রিস্তরীয় পঞ্চায়েত নির্বাচনের প্রথম দফার ভোটগ্রহণ। কিন্তু সেদিন আবার আন্তর্জাতিক শ্রম দিবস। আর তাই সেইদিন কিভাবে কর্মীদের ‘কাজ করতে’ বাধ্য করা যেতে পেরে বিচারপতি ববি সরাফের বেঞ্চে একটি মামলা করে বামপন্থী শ্রমিক সংগঠন সিটু। যেহেতু মামলাটি পঞ্চায়েত নির্বাচন বিষয়ক তাই বিচারপতি সরাফ তা পাঠিয়ে দিয়েছেন বিচারপতি তালুকদারের বেঞ্চে। সেই মামলার শুনানিও হতে চলেছে আগামীকাল।

আপনার মতামত জানান -
Top
error: Content is protected !!